ক্রীড়া ডেস্ক

উয়েফা ইউরোপা লিগের সেমিফাইনাল পর্বের প্রথম লেগের খেলায় ঘরের মাঠে রীতিমতো গোল উৎসবে মেতে উঠে ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। প্রথমার্ধে পিছিয়ে পিছিয়ে থাকলেও শেষ পর্যন্ত ৬-২ গোলের বড় ব্যবধানে জিতেছে ওলে গানার সুলশারের শিষ্যরা। এ জয়ের ফলে ফাইনালে উঠার পথটা সহজ হয়ে গেলে ম্যান ইউর।

ম্যাচের নবম মিনিটে প্রথম গোলটি করেছিল স্বাগতিক ম্যান ইউ। ব্রুনো ফার্নান্দেসের গোলে লিড নেয় তারা। তবে প্রথমার্ধের বিরতির আগে ১৫ মিনিটে লরেঞ্জ পেলেগ্রিনি ও ৩৩ মিনিটে এডিন জেকোর গোলে ম্যাচের চিত্র বদলে দেয় রোমা। এগিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় তারা।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ফের্নান্দেসের পাস ধরে জোরালো শটে লক্ষ্যভেদ করেন কাভানি। ঘুরে দাঁড়ায় ইউনাইটেড। ৬৪তম মিনিটে কাছাকাছি অবস্থান থেকে ডান পায়ের শটে দলকে এগিয়ে নেন উরুগুয়ের এই ফরোয়ার্ড। পল পগবা থেকে অ্যারন ওয়ান-বিসাকা হয়ে বলটি পেয়েছিলেন তিনি।

৭১তম মিনিটে ফের্নান্দেসের পেনাল্টি গোলে ম্যাচে চালকের আসনে বসে প্রতিযোগিতার ২০১৭ সালের চ্যাম্পিয়নরা। বক্সে কাভানি ফাউলের শিকার হয়েছিলেন। চার মিনিট পর কর্নার থেকে পগবা হেডে লক্ষ্যভেদ করলে জয় অনেকটাই নিশ্চিত হয়ে যায় ইউনাইটেডের।

৮৬তম মিনিটে ম্যাসন গ্রিনউডের গোলে বড় জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ইউনাইটেড।

এদিকে, ভিয়ারিয়ালের মাঠে প্রথমার্ধে আর্সেনালের খেলায় ছিল না প্রত্যাশিত ধার। তিন প্রচেষ্টার কোনোটিই তারা গোলমুখে রাখতে পারেনি। অন্যদিকে, গোলের উদ্দেশে নেওয়া তিন শটের দুটিতে লক্ষ্যভেদ করে স্প্যানিশ দল ভিয়ারিয়াল।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published.