ডেস্ক রিপোর্ট :

দেশব্যাপী সর্বাত্মক লকডাউন চলাকালে বিদেশ গমনেচ্ছু যাত্রীদের করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা প্রায় শূন্যের কোটায় নেমে এসেছে! দেশের ১৫টি সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মাধ্যমে আগে প্রতিদিন গড়ে পাঁচ হাজারেরও বেশি নমুনা পরীক্ষা করা হলেও সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় (১৫ এপ্রিল) মাত্র ১৩৫টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়।

এই সময়ে কমপক্ষে সাতটি জেলায় কোনো প্রবাসীকর্মীর নমুনা পরীক্ষা হয়নি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে আট লাখ ৩৪ হাজার ১৯৭ জন। স্বাস্থ্য অধিদফতরের ল্যাব কল সেন্টার সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের একাধিক দায়িত্বশীল কর্মকর্তা নমুনা পরীক্ষা হ্রাস পাওয়ার কারণ হিসেবে লকডাউন চলাকালে আন্তর্জাতিক সকল ফ্লাইট বন্ধের ঘোষণাকে মনে করছেন। তারা বলছেন, প্রবাসীকর্মীদের বেশিরভাগ মধ্যেপ্রাচ্যের দেশগুলোতে যায়। কিন্তু বর্তমানে তা বন্ধ থাকায় নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা আশঙ্কাজনকহারে কমে গেছে।

তারা বলেন, লকডাউনের কারণে আটকেপড়া প্রবাসীকর্মীদের জন্য ১৭ এপ্রিল থেকে বিশেষ ফ্লাইট চালু হচ্ছে। প্রতি সপ্তাহে শতাধিক ফ্লাইটে সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, ওমান, কাতার ও সিঙ্গাপুর- এ পাঁচটি দেশে প্রবাসীকর্মীদের বহন করা হবে। আজ থেকে আবার নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা বাড়বে বলে তারা মন্তব্য করেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সিভিল সার্জন অফিস ঢাকায় সাতজন, বরিশালে নয়জন, চট্টগ্রামে চারজন, কুমিল্লায় ছয়জন, খুলনায় ৮৬ জন, কুষ্টিয়ায় ১২ জন, বগুড়ায় দুইজন এবং দিনাজপুরে নয়জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়।

সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় কক্সবাজার, নারায়ণগঞ্জ, ময়মনসিংহ, রাজশাহী, রংপুর, সিলেট ও নোয়াখালীতে কোনো প্রবাসীকর্মীর নমুনা পরীক্ষার জন্য আসেনি।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published.