দেশে করোনা মহামারির সংক্রমণ মারাত্মক আকার ধারণ করতে যাওয়ায় আগামীকাল বুধবার থেকে আট দিনের সর্বাত্মক লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এবার ‘কড়া লকডাউন’ হবে এমন আভাস পেয়ে ব্যাপক হারে ঢাকা ছাড়ছে সাধারণ মানুষ। দূরপাল্লার গণপরিবহন বন্ধ থাকায় যে যেভাবে পারছে ছুটছে বাড়ির পথে।

মঙ্গলবার গাবতলীসহ বিভিন্ন বাস টার্মিনালে গিয়ে দেখা গেছে, সেখানে ঘরমুখি মানুষের উপচেপড়া ভিড়। দূরপাল্লার বাস বন্ধ থাকায় অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষা করে মাইক্রোবাস, প্রাইভেট কার, মোটরসাইকেল, সিএনজি, পিকআপ ও ট্রাক ভর্তি করে মানুষ ঢাকা ছাড়ছে। অনেকে নারী-শিশুসহ জীবনের ঝুঁকি নিয়ে বাড়ি ফিরছেন। কেউ কেউ আবার গাড়ি ভাড়া করে সপরিবারে বাড়ি ফিরছেন।

সাভারের বিভিন্ন মহাসড়ক ঘুরে দেখা গেছে, স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষা করে ট্রাকে গাদাগাদি করে গ্রামে ফিরছে মানুষ। ট্রাকে জায়গা নেই তবুও এর পেছনে ছুটতে দেখা গেছে ঘরমুখি মানুষদের। তারা জানান, লকডাউনের আগে যেকোনো মূল্যে বাড়ি ফিরতে চান।

সূত্র জানায়, রবিবার (১১ এ‌প্রিল) সন্ধ্যা ৬টা থেকে সোমবার (১২ এ‌প্রিল) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত বঙ্গবন্ধু সেতু দিয়ে ৩০ হাজারের বেশি যানবাহন পারাপার হয়েছে। এতে টোল আদায় হয়েছে প্রায় সোয়া কোটি টাকা। যা স্বাভাবিক সময়ের প্রায় দ্বিগুণ।

পাটুরিয়া ও মাওয়া ঘাট সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা থেকে ঘরমুখি মানুষের উপচেপড়া ভিড়ের কারণে অতিরিক্ত যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। ঘণ্টার পর ঘণ্টা যানজটে পড়ে আছে মাইক্রোবাস, প্রাইভেটকার, মোটরসাইকেল, সিএনজি, পিকআপ ও ট্রাকসহ মোটরচালিত শত শত গাড়ি। কেউ কেউ আবার গাড়ি থেকে নেমে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নদী পার হচ্ছেন নানান উপায়ে।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published.